করোনা অতিমারির থাবায় প্রায় দেড় বছর বন্ধ থাকার পর শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খুলছে। আগামী ১২ সেপ্টেম্বর থেকে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের ক্লাস শুরু হচ্ছে। স্কুল-কলেজ খুললে প্রতিদিন নির্দিষ্ট সময়ে তথ্য পাঠাতে হবে প্রতিষ্ঠান প্রধানদের। একইসাথে মাঠপর্যায়ের উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাদেরও প্রতিদিনের ক্লাসের তথ্য মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তরে পাঠাতে হবে।

বৃহস্পতিবার (৯ সেপ্টেম্বর) মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে এ নির্দেশনা দিয়ে সব প্রতিষ্ঠান প্রধান ও উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাদের চিঠি পাঠানো হয়েছে।

প্রতিষ্ঠান প্রধানদের পাঠানো চিঠিতে অধিদপ্তর বলছে, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর থেকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পুনরায় চালুকরণের জন্য একটি ‘গাইডলাইন’ এবং নির্দেশনা জারি করা হয়েছে। গাইডলাইন, নির্দেশনা পত্র এবং কোভিড-১৯ সংক্রান্ত জাতীয় কারিগরি পরামর্শক কমিটির সুপারিশসমূহের আলোকে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান নিয়মিতভাবে সুরক্ষিত রাখার জন্য দৈনিক ভিত্তিতে মনিটরিং করার লক্ষ্যে একটি মনিটরিং চেকলিস্ট প্রস্তুত করা হয়েছে। মনিটরিং চেকলিস্টের তথ্যসমূহ গুগল ডকস্-এর মাধ্যমে প্রতিদিন বেলা ৩টার মধ্যে পাঠাতে হবে। নির্ধারিত লিংকে প্রতিষ্ঠান প্রধানদের প্রতিদিন তথ্য পাঠাতে এখানে ক্লিক করুন গুগল ডকস্-এ তথ্য পাঠাতে হবে।

এ অবস্থায়, সারাদেশের সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধানকে দৈনিক ভিত্তিতে তার প্রতিষ্ঠানের তথ্য গুগল ডকস্-এর মাধ্যমে নির্দিষ্ট সময়ের মধ্যে পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছে মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদপ্তর।

এদিকে উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাদের পাঠানো চিঠিতে বলা হয়েছে, করোনা পরিস্থিতিতে দেশের সকল মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রায় দেড় বছর বন্ধ থাকার পর আগামী ১২ সেপ্টেম্বর স্বাস্থ্যবিধি অনুসরণ করে পুনরায় চালুর সিদ্ধান্ত হয়েছে। কোভিড-১৯ অতিমারির সংক্রমণ কমে আসলেও তা সম্পূর্ণ নির্মূল হয়নি। এ অবস্থায় শিক্ষা প্রতিষ্ঠান খোলার পরে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে কোভিড-১৯ এর কারণে কোন প্রকার সমস্যা হলে বিষয়টি দৈনিক ভিত্তিতে জানা এবং তাৎক্ষণিকভাবে সমস্যা সমাধানের উদ্যোগ নেওয়ার লক্ষ্যে একটি মনিটরিং ছক প্রণয়ন করা হয়েছে।

সব উপজেলা ও থানা মাধ্যমিক শিক্ষা কর্মকর্তাদের তার উপজেলা বা থানার সব শিক্ষা প্রতিষ্ঠান (মাধ্যমিক পর্যায়ের সকল সরকারি ও বেসরকারি) প্রতিদিন মনিটরিং করে বিকেল ৪টার মধ্যে নির্ধারিত ছক অনুযায়ী কেবল সমস্যা চিহ্নিত প্রতিষ্ঠানের তথ্য মনিটরিং অ্যান্ড ইভ্যালুয়েশান উইংয়ের ই-মেইলে (reopen.mew@gmail.com) পাঠানোর নির্দেশ দিয়েছে শিক্ষা অধিদপ্তর।

নির্ধারিত ছকে, তারিখ, প্রতিষ্ঠানের নাম, প্রতিষ্ঠান প্রধানের নাম, মোবাইল নম্বর ও ইমেইল আইডি, উপজেলার নাম, জেলার নাম, সমস্যার ধরণ, সমস্য সমাধানের তথ্য মন্তব্যসহ পাঠাতে হবে।

শেয়ার করুনঃ