২০২০ খ্রিষ্টাব্দের এইচএসসি ও সমমানের মূল্যায়নের ফলে প্রচুর জিপিএ ৫.০০। গতবারের তুলনায় বেশি। আন্তঃশিক্ষাবোর্ড সমন্বয় সাব কমিটি এবং মাদরাসা বোর্ড কর্তৃক বিশ্বস্ত সূত্র শিক্ষা টিইমসকে এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন। গত বছর এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় ৪৭ হাজারের বেশি পরীক্ষার্থী জিপিএ ফাইভ পেয়েছিলেন। তার আগের বছর জিপিএ ফাইভ পেয়েছিলেন ২৯ হাজার পরীক্ষার্থী। এই বাংলাদেশেই ইংরেজি মাধ্যমের ও  এবং এ লেভেল পরীক্ষার্থীরা আগের নিয়মেই পাবলিক পরীক্ষায় বসেছে এবং ফল পেয়েছে কিন্তু সাধারণ ধারার পরীক্ষার্থীদের পরীক্ষা না নিয়ে অটোপাস দেয়া হয়েছে। যদিও মন্ত্রণালয় দাবি করছে এমন অটোপাস নাকি পৃথিবীর কোন কোন দেশে হয়েছে!

৯টি সাধারণ বোর্ড থেকে এইচএসসিতে জিপিএ ফাইভ পেয়েছেন ১ লাখ ৫৩ হাজার ৬১৪ জন শিক্ষার্থী। আর আলিমে জিপিএ ফাইভ পেয়েছে ৪ হাজার ৪৮ জন শিক্ষার্থী। এইচএসসি বিএমে জিপিএ ফাইভ পেয়েছে ৪ হাজার ১৪৫ জন শিক্ষার্থী।

রাজধানীর সেগুনবাগিচার আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা ইনস্টিটিউটে এ ফল ঘোষণা করা হয়। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গণভবন থেকে অনলাইনে ফল ঘোষণা অনুষ্ঠানে যুক্ত ছিলেন। 

১১টি শিক্ষা বোর্ড থেকে ২০২০ খ্রিষ্টাব্দে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় অংশ নিতে ফরম পূরণ করা শতভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে। সে হিসেবে মোট ১৩ লাখ ৬৫ হাজার ৭৮৯ জন শিক্ষার্থীর এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হলেন।  

মহামারি পরিস্থিতিতে পরীক্ষা ছাড়াই জেএসসি ও এসএসসি পরীক্ষার ফলের ভিত্তিতে এইচএসসি পরীক্ষার্থীদের ফল প্রকাশ করা হল। সে হিসেবে শতভাগ শিক্ষার্থী পাস করেছে। 

আরও পড়ুন- ৩০ জানুয়ারী এইচএসসির ফল প্রকাশ